শিক্ষা

৯৩.৫৮ % পাশে মেয়েরা এগিয়ে

 

বিশেষ প্রতিনিধি/স্টাফ রিপোর্টার : চলতি বছরের মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমানের পরীক্ষার (২০২১) ফল প্রকাশিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৩০ ডিসেম্বর) সকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে অনলাইনে যুক্ত হয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এ ফল প্রকাশ উদ্বোধন করেন। এরপর শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে ফলাফলের বিস্তারিত তুলে ধরেন।নয় সাধারণ শিক্ষাবোর্ডের এসএসসি, মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের দাখিল ও কারিগরি শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষায় গড় পাসের হার ৯৩ দশমিক ৫৮ শতাংশ। এরমধ্যে এসএসসির পাসের হার ৯৪ দশমিক ০৮ শতাংশ। দাখিলের পাসের হার ৯৩ দশমিক ২২ শতাংশ এবং কারিগরি শিক্ষাবোর্ডের ভোকেশনাল পরীক্ষার পাসের হার ৮৮ দশমিক ৪৯ শতাংশ।গত বছরের তুলনায় এবার পাসের হার বেড়েছে। গত বছর পাসের গড় হার ছিল ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ।

পাসের হার বৃদ্ধির কারণ সম্পর্কে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন, ‘এবার বিশেষ পরিস্থিতির কারণে সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে তিনটি বিষয়ে পরীক্ষা নেওয়া হয়েছে। বাকি বিষয়গুলোর মূল্যায়ন অষ্টম শ্রেণির জেএসসি পরীক্ষার ওপর করা হয়েছে। সে কারণে হয়তো দুই সূচকে পাসের হার বৃদ্ধি পেয়েছে। এতে করে শিক্ষার মান বেড়ে গেছে তা বলা যাবে না।ঘোষিত ফলাফল অনুযায়ী ৯ শিক্ষা বোর্ডের মধ্যে ঢাকা বোর্ডের পাসের হার ৯৩ দশমিক ১৫ শতাংশ, সিলেট শিক্ষা বোর্ডে ৯৬ দশমিক ৭৮ শতাংশ, বরিশালে ৯০ দশমিক ১৯ শতাংশ, চট্টগ্রামে ৯১ দশমিক ১২ শতাংশ, কুমিল্লায় ৯৬ দশমিক ২৭ শতাংশ, রাজশাহীতে ৯৪ দশমিক ৭১ শতাংশ, দিনাজপুরে ৯৪ দশমিক ৮০ শতাংশ, যশোরে ৯৩ দশমিক ০৯। ময়মনসিংহে ৯৭ দশমিক ৫২ শতাংশ। এসএসসি বা সমমানের পরীক্ষায় এবার অংশ নেয় ২২ লাখ ৪০ হাজার ৩৯৫ পরীক্ষার্থী। এর মধ্যে উত্তীর্ণ হয়েছে ২০ লাখ ৯৬ হাজার ৫৪৬ জন। পাসের হারের দিক দিয়ে ছাত্রদের চেয়ে ছাত্রীরা এগিয়ে। ছাত্রীদের পাসের হার ৯৪ দশমিক ৫০ শতাংশ আর ছাত্রদের হার ৯২ দশমিক ৬৯ শতাংশ।

এবারের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১ লাখ ৮৩ হাজার ৩৪০ শিক্ষার্থী। পাসের হারের মতো জিপিএ-৫ পাওয়ার দিক দিয়েও ছাত্রদের চেয়ে ছাত্রীরা এগিয়ে। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ছাত্রী ১ লাখ ৩ হাজার ৫৭৮ জন আর ছাত্র ৭৯ হাজার ৭৬২ জন।এবার সারাদেশের পাঁচ হাজার ৪৯৪টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শতভাগ শিক্ষার্থী পাস করেছে। শতভাগ পাস করা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সংখ্যা গত বছরের চেয়ে এবার বেড়েছে। গত বছর শতভাগ পাস করা প্রতিষ্ঠান ছিল তিন হাজার ২৩টি। এবার অবশ্য পরীক্ষায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের অংশগ্রহণও বেশি ছিল গতবারের চেয়ে। এবার ২৯ হাজার ৬০টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা পরীক্ষায় অংশ নেয়। গত বছর প্রতিষ্ঠান ছিল ২৮ হাজার ৭৯৬টি।

শূন্য পাস শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সংখ্যাও এবার কমেছে। গত বছর শূন্য পাস প্রতিষ্ঠান ছিল ১০৪টি।বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাস সংক্রমণের কারণে এ বছর এসএসসি পরীক্ষা নির্ধারিত সময় ফেব্রুয়ারি মাসে অনুষ্ঠিত হতে পারেনি। সাড়ে আট মাস পিছিয়ে পরীক্ষা ১৪ নভেম্বর শুরু হয়ে শেষ হয় ২৩ নভেম্বর।এবার সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে গ্রুপভিত্তিক তিনটি বিষয়ে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। অন্য আবশ্যিক বিষয় ও চতুর্থ বিষয়ের পরীক্ষা হয়নি। এসব বিষয়ে জেএসসি ও সমমানের পরীক্ষার নম্বরের ভিত্তিতে ‘ম্যাপিং’ করে নম্বর দেওয়ার কথা জানানো হয়।

এসএসসির ফল জানা যাবে যেভাবে

এই ওয়েবসাইটে গিয়ে রোল ও রেজিস্ট্রেশন নম্বর দিয়ে ফল জানা যাবে।মোবাইল এসএমএসের মাধ্যমে ফল জানতে এসএসসি শিক্ষার্থীদের জন্য SSC লিখে স্পেস দিয়ে শিক্ষা বোর্ডের নামের প্রথম তিন অক্ষর লিখে স্পেস দিয়ে রোল নম্বর লিখে স্পেস দিয়ে 2021 লিখে 16222 নম্বরে পাঠাতে হবে। ফিরতি এসএমএসেই ফল পাওয়া যাবে।
দাখিলের ফল পেতে Dakhil লিখে স্পেস দিয়ে Mad লিখে স্পেস দিয়ে রোল নম্বর লিখে স্পেস দিয়ে 2021 লিখে 16222 নম্বরে পাঠাতে হবে। কারিগরি বোর্ডের ক্ষেত্রে SSC লিখে স্পেস দিয়ে Tec লিখে স্পেস দিয়ে রোল নম্বর লিখে স্পেস দিয়ে 2021 লিখে 16222 নম্বরে পাঠাতে হবে।এছাড়া জেলা প্রশাসক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের অফিস থেকে ফলাফলের কপি সংগ্রহ করা যাবে বলে জানিয়েছে ঢাকা শিক্ষা বোর্ড।

ভর্তি প্রক্রিয়া ৫ জানুয়ারি থেকে
এসএসসি উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির সূচি চূড়ান্ত করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। ভর্তির জন্য অনলাইন আবেদন আগামী ৫ জানুয়ারি শুরু হয়ে চলবে ২২ জানুয়ারি পর্যন্ত। এরপর তিন ধাপে ফল প্রকাশ ও ভর্তি সম্পন্ন হবে। ভর্তির আবেদন ফি নির্ধারণ হয়েছে ১৫০ টাকা। ভর্তি প্রক্রিয়া শেষে ক্লাস শুরু হবে ২ মার্চ থেকে।

 

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Back to top button