জাতীয়জেলার খবর

ক্ষমতা না থাকলে পায়ের  নিচে মাটি থাকবে না


চট্টগ্রাম প্রতিনিধি :  চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, আওয়ামী লীগ যদি ক্ষমতায় না থাকে তাহলে আমাদের কারো পায়ের নিচে মাটি থাকবে না। আমাদের মধ্যে মতভিন্নতা ও নেতৃত্বের প্রতিযোগিতাসহ যা কিছুই থাক না কেন, মনে রাখতে হবে আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন জাতীয় অস্তিত্ব রক্ষার অগ্নি পরীক্ষার শুভ মাহেন্দ্রক্ষণ।
তিনি বলেন, আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যাকেই নৌকা প্রতীক দেবেন, তাকেই বিজয়ী করতে এখন থেকে আমাদের সাংগঠনিক শৃঙ্খলা অনুযায়ী ঐক্যবদ্ধ হয়ে জনগণের আস্থা অর্জনে কাজ করে যেতে হবে।রোববার (১৭ এপ্রিল) বিকেলে চট্টগ্রাম নগরীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সেন্টারে ঐতিহাসিক ১৭ এপ্রিল মুজিবনগর সরকার দিবস উপলক্ষে ইফতার মাহফিলপূর্ব আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

সাবেক এই মেয়র বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। অর্থনৈতিক সমৃদ্ধি অর্জন এবং নানামুখী বহুমাত্রিক উন্নয়নে বাংলাদেশ বিশ্বসভায় মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে। কিন্তু অপ্রিয় হলেও সত্য আমাদের চেতনাগত উন্নয়ন ও বিকাশের ধারাটি ক্ষেত্রবিশেষে গতি  হারিয়েছে। চেতনাগত চিন্তার ঐক্যই এখন আমাদের আরাধ্য হওয়া উচিত। তা না হলে আমরা কেউ নিরাপদ তো নই, জাতীয় অস্তিত্বও বিপন্ন হতে পারে।

নাছির উদ্দীন বলেন, ঢাকার পর চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ সংগঠনের সবচেয়ে বড় আদর্শিক দলীয় প্লাটফর্ম। আমাদের মধ্যে মতভিন্নতা থাকতেই পারে, তবে তাতে যেন ব্যক্তিস্বার্থ কেন্দ্রিক ও অনৈতিক উচ্চাভিলাষী আচরণের বহিঃপ্রকাশ না ঘটে। চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ অতীতেও প্রমাণ করেছে এখনও করছে। আগামীতেও করবে আমরা ঐক্যবদ্ধ। বৃহত্তর রাজনৈতিক ও দলীয় স্বার্থে ও ঐক্যবদ্ধ হয়ে আমাদের অবশ্যই ব্রত গ্রহণ করতে হবে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চট্টগ্রাম মহানগর ও তৎসংলগ্ন এলাকার ৬টি সংসদীয় আসন অবশ্যই প্রধানমন্ত্রীকে উপহার দেবো।

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দীন চৌধুরী বলেন,
আমাদের মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে স্বাধীন বাংলা সরকারের শপথ গ্রহণের এ দিনটি ছিল মহান মুক্তিযুদ্ধের ভিত্তি সোপান। আজ আমরা স্বাধীনতা দিবস ও বিজয় দিবস পালন করলেও এই দিনটি যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন করি না। অথচ মুজিবনগর সরকার প্রতিষ্ঠা ও তাঁর শপথ গ্রহণ না হলে স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধ অর্থহীন হয়ে দাঁড়ায়।

তিনি আরও বলেন, এখনও মুক্তিযুদ্ধের পরাজিত শক্তির ক্রীড়নকরা অশুভ অপতৎপরতায় লিপ্ত রয়েছে।
চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনীর সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন- চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি আলহাজ্ব নঈম উদ্দীন চৌধুরী, অ্যাডভোকেট ইব্রাহিম হোসেন চৌধুরী বাবুল, এম. জহিরুল আলম দোভাষ, আলতাফ হোসেন চৌধুরী বাচ্চু, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব বদিউল আলম, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আলহাজ্ব শফিকুল ইসলাম ফারুক, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক চন্দন ধর প্রমুখ।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Back to top button