অপরাধ

রাজধানীর বনানী স্পা সেন্টারে অসামাজিকতার বলি প্রকৌশলী!

 

 

স্টাফ রিপোর্টার : এবার রাজধানীর বনানী স্পা সেন্টারে অসামাজিকতার বলি হয়েছে এক প্রকৌশলী। বনানী এলাকার একটি ভবনের ১০ তলায় ছিল ওই অসামাজিক কার্যকলাপের স্পা সেন্টার। পুলিশী অভিযানের সময় সেখান থেকে সে পড়ে যায় বলে দাবি করা হচ্ছে। পুলিশ জানায়, গতকাল শুক্রবার ওই ভবনের একটি স্পা সেন্টারে ‘অসামাজিক কর্মকাণ্ডের’ অভিযোগে চালানো অভিযানের সময় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত নাসির উদ্দিন মোংলা বন্দরের উপসহকারী প্রকৌশলী ছিলেন। রাজধানীর একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিএসসি করেছেন। তিনি ঢাকার মাতুয়াইলের বাসিন্দা। তবে পেশাগত কারণে স্ত্রীকে নিয়ে খুলনায় থাকতেন। বনানী থানা-পুলিশের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, অভিযানের সময় নাসির ১০ তলা থেকে পড়ে যান। দুই ভবনের মাঝ থেকে তাঁর লাশ উদ্ধার করা হয়। তাঁকে কেউ ফেলে দিয়েছে, নাকি পুলিশের অভিযানের সময় পালাতে গিয়ে পড়ে মৃত্যু হয়েছে, তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

তবে নাসিরকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে বলে মনে করছেন তাঁর ভগ্নিপতি মাহমুদুল হক। তিনি আজ রোববার বলেন, পুলিশ বলছে, অভিযানের সময় পালাতে গিয়ে তাঁর মৃত্যু হতে পারে। তবে নাসির এ ধরনের ছেলে না। তাঁর জীবনযাপনের সঙ্গে স্পা সেন্টারে যাওয়ার বিষয়টি মিলছে না।ওই স্পা সেন্টারের ব্যবস্থাপকের কাছে পুলিশ সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখতে চেয়েছিল বলে জানান মাহমুদুল হক। তিনি বলেন, ‘সেখানে সিসিটিভি থাকলেও ভিডিও রেকর্ড করা হয় না বলে পুলিশকে জানানো হয়েছে। এ কারণে আমাদের সন্দেহ আরও বেড়েছে।

ওসি নূরে আজম মিয়া বলেন, নিয়মিত অভিযানের পাশাপাশি পদ্মা সেতুর উদ্বোধন সামনে রেখে আমরা অভিযান জোরদার করি। গত শুক্রবার ওই ভবনে পুলিশ অভিযানে যায়। অসামাজিক কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকায় সেখান থেকে ১৪ জনকে আটক করা হয়।এদিকে নাসিরের মৃত্যুর ঘটনায় তাঁর পরিবারের পক্ষ থেকে একটি অপমৃত্যুর মামলা করা হয়েছে বলে জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা। বলেন, মৃত্যুর প্রকৃত রহস্য উদ্‌ঘাটনে তদন্ত করা হচ্ছে।

 

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Back to top button