অর্থনীতি

সম্পদ অর্জন সঞ্চয় বণ্টনে ইসলামিক দৃষ্টিভঙ্গি তুলে ধরল স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড সাদিক

অর্থনৈতিক রিপোর্টার : স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড সাদিক বাংলাদেশ সম্প্রতি ব্যাংকের লিভিং ইসলাম- এর চতুর্থ সেশন আয়োজন করেছে। এবারে আয়োজনের শিরোনাম ছিল ‘সম্পদ অর্জন, সঞ্চয় ও বণ্টনে ইসলামিক দৃষ্টিভঙ্গি’। ইসলামের আলোকে সম্পদ ও অর্থনীতি সম্পর্কে পূর্ণ ধারণা অর্জনে আগ্রহীরা আয়োজনে আমন্ত্রিত ছিলেন। স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড সাদিক মালয়েশিয়া’র শরিয়াহ কমিটির সদস্য মুফতি ইউসুফ সুলতানআয়োজনে নেতৃত্ব প্রদান করেন এবং আলোচ্য বিষয়ে তার বক্তৃতা দেন।

তিনি একজন প্রখ্যাত স্কলার হওয়ার পাশাপাশি ইসলামিক ফাইন্যান্স ও ব্যাংকিং বিশেষজ্ঞ হিসেবেও সুপরিচিত। অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড বাংলাদেশ-এর সিইও নাসের এজাজ বিজয়। স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড-এর ইসলামিক ব্যাংকিং বিভাগের সিইও ও হেড অব গ্রুপ ইসলামিক প্রোডাক্ট খুররাম হিলাল; এবং স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড ইউএই-এর হেড অব ইসলামিক ব্যাংকিং ও গ্রুপ ইসলামিক ব্যাংকিং-এর হেড অব কনজ্যুমার, প্রাইভেট অ্যান্ড বিজনেস ব্যাংকিং আলী আল্লাওয়ালা প্রমুখ। নুষ্ঠানে মুফতি ইউসুফ সুলতান ইসলামিক দৃষ্টিভঙ্গিতে আর্থিক বিষয়গুলো বোঝার ও সম্পাদনের গুরুত্ব সম্পর্কে আলোকপাত করেন। সম্পদ অর্জন ও বণ্টনের ক্ষেত্রে এবং সাম্প্রদায়িক কল্যাণে মুসলমানদের
দায়বদ্ধতা সম্পর্কেও তিনি আলোচনা করেন।

তিনি বলেন, “ধন-সম্পদের চূড়ান্ত মালিক হলেন আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তায়ালা, যেখানে মানুষ শুধুমাত্র সেসবের দেখ-রেখকারী। তাই একজন মুমিনকে অবশ্যই ইসলামের শিক্ষা মেনে চলতে হবে এবং ইসলামের আলোকে সম্পদ উপার্জন ও ব্যয় করতে হবে। ইসলাম পরিশ্রমের মাধ্যমে (চাকুরি, ব্যবসা) সম্পদ উপর্জনে উৎসাহ প্রদান করে এবং অলসতাকে কখনোই সমর্থন করে না। স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড বাংলাদেশ-এর ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও হেড অব কনজিউমার, প্রাইভেট অ্যান্ড বিজনেস ব্যাংকিং; সাব্বির আহমেদ বলেন, “বাংলাদেশে ইসলামিক ফাইন্যান্সের প্রয়োজনীয়তা ও চাহিদা ক্রমবর্ধমান।

শরিয়াহ মোতাবেক আর্থিক লেনদেন সম্পাদনে ইসলামী ব্যাংকিং ইতিবাচক প্রভাব ও ভূমিকা পালন করবে। আমরা সারা জীবন ধরে সম্পদ উপার্জন ও সঞ্চয় করি। তবে অভাবী ও হতদরিদ্রের মাঝে সেই সম্পদ পর্যপ্ত পরিমাণে বণ্টনও করতে হয়। মুফতি ইউসুফ সুলতানের মতো একজন গুণী স্কলারের কাছ থেকে এসব বিষয় শেখার সুযোগ পেয়ে আমরা নিজেদের ভাগ্যবান মনে করছি। স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড সাদিক বাংলাদেশের একমাত্র আন্তর্জাতিক ইসলামী ব্যাংকিং পরিষেবা। দীর্ঘ ১৮
বছর ধরে স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড সাদিক বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে পরিবর্তন ও উদ্ভাবনের অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে।

স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড সাদিকের লিভিং ইসলাম অত্যন্ত প্রাসঙ্গিক ও গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো নিয়ে ইসলামিক স্কলার্স ও বিশেষজ্ঞদের সাথে ক্লায়েন্ট, রেগুলেটর ও অন্যান্য স্টেকহোল্ডারদের মধ্যকার সংযোগ সহজতর করে। ২০২২ সালের এপ্রিলে লিভিং ইসলাম সিরিজের অংশ হিসাবে ‘রমজান থেকে শিক্ষা – প্রতিফলনের মাস’ শীর্ষক একটি লাইভ ওয়েবিনার আয়োজন করা হয়। ২০১৯ সালে লিভিং ইসলামের উদ্বোধনী অধিবেশনের থিম ছিল ‘ব্যবসায়িক নীতিশাস্ত্র’। ২০২১-এর লাইভ ওয়েবিনারের থিম ছিল ‘সাদকাহ কীভাবে মহামারিতে ইসলামিক প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করে।

মুফতি ইউসুফ সুলতান বাহরাইনের অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড অডিটিং অর্গানাইজেশন ফর ইসলামিক ফাইন্যান্সিয়াল ইনস্টিটিউশন-এর (এএওআইএফআই) একজন সার্টিফাইড শরিয়াহ উপদেষ্টা ও নিরীক্ষক (সিএসএএ)। একইসাথে তিনি একজন এএওআইএফআই মাস্টার ট্রেইনার। তিনি মালয়েশিয়া’র আইএনসিইআইএফ থেকে ইসলামিক ফাইন্যান্সে এমএসসি ডিগ্রি অর্জন করেছেন। মুফতি ইউসুফ সুলতান মালয়েশিয়ার সিকিউরিটিজ কমিশনের একজন নিবন্ধিত শরিয়াহ উপদেষ্টা এবং দুবাইয়ের এথিকা’র একজন সার্টিফাইড ইসলামিক ফাইন্যান্স এ·িকিউটিভ (সিআইএফই)। মুফতি ইউসুফ সুলতান মালয়েশিয়া’য় এডিএল অ্যাডভাইজরি-এর প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এবং বাংলাদেশে আইএফএ কনসালটেন্সি’র সহ-প্রতিষ্ঠাতা।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button